ব্রেকিং:
একশ’ কোটি টাকা নিয়ে ভারতে পালালেন ব্যবসায়ী মুন্সেফ কোয়ার্টার এলাকার সড়কের নামফলক অপসারণ কুমিল্লা মহানগর মহিলা আওয়ামী লীগের কমিটি অনুমোদন ২০ লাখ টাকার দাবিতে বন্ধুকে অপহরণ, সাতদিন পর উদ্ধার গোসল করাকে কেন্দ্র করে সৌদিতে বাংলাদেশি যুবক খুন ‘দুর্নীতি দমনে সরকার আশাবাদী’ প্রধানমন্ত্রী আবুধাবি পৌঁছেছেন ব্রাহ্মণপাড়ায় প্রান্তিক জনগোষ্ঠিদের মাঝে অনুদান বিতরণ কুবিতে সাংবাদিক হয়রানি ও লাঞ্ছনার বিচার চেয়ে মানববন্ধন কুমিল্লায় এ্যাম্বুল্যান্সের অবৈধ পার্কিংএ সৃষ্টি হচ্ছে যানজট লাকসাম রেলওয়ে জংশনের ষ্টেশন মাস্টারের বিরুদ্ধে অনিয়মের অভিযোগ তিতাসে ৭ জন প্রার্থীর মনোনয়নপত্র জমা চান্দিনায় বেতন স্কেল বৃদ্ধির দাবীতে শিক্ষকদের মানববন্ধন চৌদ্দগ্রামে ৭ দফার দাবিতে শিক্ষকদের মানববন্ধন দেবিদ্বারে পুলিশের অভিযানে দুই গাঁজা ব্যবসায়ী আটক হোমনায় এনজিও কর্মীকে পিটিয়ে টাকা পয়সা ছিনতাই কুমিল্লায় নারীসহ দুই মাদক ব্যবসায়ী আটক মুরাদনগরে নিজের ড্রেজারের নৌকায় বালু ব্যবসায়ীর লাশ নাঙ্গলকোটে সরকারি খাল পাড়ের অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ বরুড়ায় শহীদ মুক্তিযোদ্ধাদের স্মরণ

রোববার   ২২ সেপ্টেম্বর ২০১৯   আশ্বিন ৬ ১৪২৬   ২২ মুহররম ১৪৪১

কুমিল্লার ধ্বনি
৬০

অনলাইনে ভিক্ষা’ করে ১৭ দিনে আয় ৪২ লাখ!

প্রকাশিত: ১২ জুন ২০১৯  

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে নিজেকে ‘স্বামী পরিত্যক্তা’ দাবি করে দুবাইয়ের মানুষের সহমর্মিতাকে পুঁজি করে ১৭ দিনে এক লাখ ৮৪ হাজার দিরহাম (বাংলাদেশি মুদ্রায় ৪২ লাখ টাকারও বেশি) হাতিয়ে নিয়েছেন এক নারী। খবর আরব-আমিরাত ভিত্তিক গণমাধ্যম খালিজ টাইমস। 

দুবাই পুলিশের অপরাধ তদন্ত বিভাগের প্রধান জামাল সালেম আল জাল্লাফ জানিয়েছেন, নিজেকে বিদেশি নাগরিক এবং স্বামী পরিত্যক্তা পরিচয় দিয়ে ফেসবুক, ইন্সটাগ্রাম এবং টুইটারের মাধ্যমে সন্তানদের ভরণ-পোষণের জন্য সহায়তা চান তিনি। কিন্তু, তার স্বামীই স্ত্রীর এমন প্রতারণার বিষয়ে অভিযোগ করেন দুবাই পুলিশের কাছে।

তদন্তে জানা গেছে, ওই নারীর দাবি সম্পূর্ণ অসত্য এবং তিনি স্বামীর সঙ্গেই বসবাস করে আসছিলেন। লোকজনের দৃষ্টি আকর্ষণের জন্য নিজের সন্তানদের ছবিও অনলাইনে প্রকাশ করেছিলেন তিনি।

পুলিশ জানিয়েছে, অনলাইনে সন্তানদের ছবি দিয়ে সহায়তা চাওয়ার বিষয়টি কয়েকজন আত্মীয়ের মাধ্যমে জানতে পারেন ওই নারীর স্বামী।

দুবাইয়ের আইন অনুযায়ী অনলাইনে ভিক্ষাবৃত্তি এক ধরনের অপরাধ। তবে, অসুস্থতা কিংবা দারিদ্র্যের দোহাই দিয়ে দেশটিতে অনেকেই এ ধরনের কর্মকাণ্ডে জড়িয়ে পড়ছেন। এ ধরনের অপরাধে জেল কিংবা জরিমানা অথবা উভয় শাস্তিরই বিধান রয়েছে।

কুমিল্লার ধ্বনি
কুমিল্লার ধ্বনি
এই বিভাগের আরো খবর