ব্রেকিং:
এপ্রিলেই মিলবে ক্ষতিপূরণের ১২০ কোটি টাকা জাতিসংঘ শান্তিবিনির্মাণ কমিশনের সহ-সভাপতি হলো বাংলাদেশ রোজা উপলক্ষে ভারত থেকে ৩৮০০ মেট্রিক টন মসুর ডাল আমদানি বাংলাদেশ-ভারত অকৃত্রিম বন্ধু: প্রণয় ভার্মা গণতন্ত্র সূচকে দুই ধাপ এগিয়েছে বাংলাদেশ সমৃদ্ধ রাজস্ব ভাণ্ডার গড়ে তোলার ওপর প্রাধান্য দিচ্ছে সরকার সামাজিক সংগঠন চাঁদমুখ এর কমিটি গঠন জেলা পরিষদের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তার কোয়াটার উদ্বোধন মতলব দক্ষিনে পৌর শ্রমিক লীগের পরিচিতি সভা স্মার্ট রাজনীতিতে দেশের স্বার্থ সবচাইতে আগে প্রাধান্য পাবে ফরিদগঞ্জে বৃদ্ধকে কুপিয়ে জখম : আটক ১ মনোনয়ন প্রত্যাশী রেদওয়ান খান বোরহানের গণসংযোগ ১০ দফা দাবিতে বিএনপি কুমিল্লা বিভাগীয় সমাবেশ আজ জনগণের মাঝে দীপু আপার উন্নয়নের কথা পৌঁছাতে হবে -আলী এরশ্বাদ আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য মায়া চৌধুরীর জন্মদিন পালিত কচুয়ায় আমিনুল ইসলামকে নাগরিক সংবর্ধনা প্রদান শেখ হাসিনা সরকার আমলে কেউ কষ্টে নেই: এমপি রুহুল শেখ হাসিনা দুঃখী মানুষের মুখে হাসি ফুটানোর জন্য কাজ করছে কচুয়ায় ৫১ বছর পর অবশেষে কাঠালিয়া গ্রামবাসীর স্বপ্ন পূরন বুড়িচংয়ে ১৬৮ হেক্টর জমিতে সরিষার চাষ বাম্পার ফলনের সম্ভাবনা
  • রোববার   ০৫ ফেব্রুয়ারি ২০২৩ ||

  • মাঘ ২৩ ১৪২৯

  • || ১৩ রজব ১৪৪৪

কাজের মেয়ে কে গরম পানিতে ঝলসে দেন ভিক্টোরিয়ার অধ্যক্ষের স্ত্রী

কুমিল্লার ধ্বনি

প্রকাশিত: ৪ জানুয়ারি ২০২৩  

গৃহপরিচারিকা সুমাইয়া আক্তারকে(১২) মারধর করে গায়ে গরম পানি দিয়ে ঝলছে দিয়েছেন কুমিল্লা ভিক্টোরিয়া সরকারি কলেজের সাবেক অধ্যক্ষ আবু তাহেরের স্ত্রী তাহমিনা তুহিন। মেয়েটি দোতলা থেকে লাফিয়ে পড়ে আত্মরক্ষা করেন। মঙ্গলবার সন্ধ্যায় ৭ টায় কুমিল্লা নগরীর ধর্মপুর ভিক্টোরিয়া কলেজ সংলগ্ন পূর্ব দৌলতপুর এলাকার এস আর টি প্যালেস বাসায় এই ঘটনা ঘটে। স্থানীয়রা ৯৯৯ এ কল করলে পুলিশ দগ্ধ ওই গৃহপরিচারিকাকে উদ্ধার করে। তাকে কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের বার্ন ইউনিটে নিয়ে যায়। মেয়েটির বাড়ি কুমিল্লার দেবিদ্বার উপজেলার তেবাড়িয়া গ্রামে।

ভিডিও বক্তব্যে মেয়েটি জানান,আবু তাহেরের মেয়ে ফাহমিদা তিমুর ঢাকার বাসা ও আবু তাহেরের কুমিল্লার বাসায় চার বছর ধরে কাজ করছে। কাজে দেরি হলে তাহেরের স্ত্রী ও মেয়ে ফাহমিদা তাহের তিমু জালি বেত দিয়ে মারধর করে এবং গরম পানি ঢালে। গতকাল গরম পানি ঢেলে পা ঝলসে দেয়। আজও মারের পর গরম পানি ঢালতে চাইলে দোতলা থেকে লাফিয়ে পড়েন। পাশের মেয়েদের হোস্টেলে গিয়ে আশ্রয় নেন।

হোস্টেলের এক মেয়ে বলেন,আমরা উপরে চিৎকার চেচামেচি শুনি। পরে দেখি ছোট একটি মেয়ে আমাদের রুমে প্রবেশ করে আশ্রয় চায়। তার পা ঝলসে যাওয়া। পরে আমরা পুলিশে জানাই। আবু তাহেরের স্ত্রী তাহমিনা তুহিন মেয়েকে আটকে রাখতে চেয়েছেন। স্থানীয়দের বাধায় পারেননি।

ভিক্টোরিয়া সরকারি কলেজের সাবেক অধ্যক্ষ আবু তাহের বলেন, মেয়েটি আমাদের আত্মীয়ের মধ্যে। মেয়ের শ^শুর বাড়ি দেবিদ্বারে তার বাড়ি। আমি ও আমার স্ত্রী খুব অসুস্থ। কিছুদিন আগেও আইসিইউতে ছিলাম। আজ আমি বাইরে ছিলাম। আমার স্ত্রী জানিয়েছেন তাকে মারধর করেননি। সে পাপোষে পা পিছলে পড়ে পায়ে একটু গরম পানি পড়েছে। পাশের হোস্টেলের একটি মেয়ে বিষয়টিকে বড় করেছে।

কুমিল্লা কোতয়ালী মডেল থানার ওসি আহমেদ সনজুর মোর্শেদ বলেন, মেয়েটির পা ঝলসে গেছে। বিষয়টি আমরা তদন্ত করে আইনি ব্যবস্থা গ্রহণ করবো।