ব্রেকিং:
অনির্দিষ্টকাল জনগণের আয়ের পথ বন্ধ রাখা সম্ভব নয়: প্রধানমন্ত্রী নজরুলের গান আবৃত্তি করে দেশবাসীকে ঈদের শুভেচ্ছা প্রধানমন্ত্রীর প্রধানমন্ত্রীর ঈদ উপহার পেল দুই শতাধিক পথশিশু ‘করোনার শুরু থেকেই ত্রাণ কার্যক্রম চালাচ্ছেন সংসদ সদস্যরা’ মোবাইল অ্যাপ ও হটলাইনে সাংসদ আসলামুল হকের অভিনব খাদ্য সহায়তা জাতীয় কবির ১২১তম জন্মদিন আজ বাঙ্গালির ঈদ উৎসবে ‘রমজানের ওই রোজার শেষে’র আগমন কিভাবে? দেশবাসীকে আওয়ামী লীগের ঈদ শুভেচ্ছা করোনাকালের ৫৬ দিনে ৩ লাখ ১৯ হাজার কনটেইনার হ্যান্ডলিং ক্ষতিগ্রস্ত বেড়িবাঁধ মেরামতের কাজ শুরু করেছে সেনাবাহিনী ২৮০ ট্রান্সজেন্ডার ও হিজড়াকে ঈদ সামগ্রী প্রদান করেছে বন্ধু দুর্দিনে বারো হাজার মানুষকে খাদ্য সামগ্রী দিলো এসএসসি ২০০০ ব্যাচ আম্ফানে ক্ষতিগ্রস্ত ৬হাজার পরিবারকে ৩কোটি টাকা সহায়তাদেবে ব্র্যাক শেখ হাসিনাকে ঈদের শুভেচ্ছা জানালেন ভুটানের প্রধানমন্ত্রী ঈদ উপলক্ষে জাতির উদ্দেশে ভাষণ দেবেন প্রধানমন্ত্রী ত্রাণ সহায়তা অব্যাহত রেখেছে সরকার দেশে ২৪ ঘণ্টায় নতুন শনাক্ত ১৮৭৩, মৃত্যু ২০ মুসল্লিদের সুবিধার্থে মসজিদে সর্বাধিক ঈদের জামাতের আয়োজন করোনা রোগীর চিকিৎসায় ৩ হাজার পদ সৃষ্টি নগদ সহায়তা পাবে ৪৮ লাখ প্রান্তিক উদ্যোক্তা
  • মঙ্গলবার   ২৬ মে ২০২০ ||

  • জ্যৈষ্ঠ ১২ ১৪২৭

  • || ০২ শাওয়াল ১৪৪১

৭০০

ছেড়াদ্বীপে পর্যটক নিষিদ্ধ

কুমিল্লার ধ্বনি

প্রকাশিত: ১২ জানুয়ারি ২০২০  

দেশের অন্যতম জনপ্রিয় পর্যটনকেন্দ্র সেন্টমার্টিনের ছেঁড়াদ্বীপে পর্যটক প্রবেশ নিষিদ্ধ করা হচ্ছে। এছাড়া সেন্টমার্টিনে অবৈধ ১০৬টি আবাসিক হোটেল সরিয়ে নেয়া হচ্ছে।

মিয়ানমার সীমান্ত ঘেঁষা দেশের একমাত্র প্রবালদ্বীপের পরিবেশ ও জীববৈচিত্র্য রক্ষায় এ উদ্যোগ নিয়েছে পরিবেশ অধিদফতর।

বৃহস্পতিবার বিকেলে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন পরিবেশ অধিদফতরের পরিচালক সোলায়মান হায়দার।

তিনি বলেন, সেন্টমার্টিনের সব জায়গা পর্যটকদের জন্য নয়। ছেঁড়াদ্বীপ পরিবেশ মন্ত্রণালয়ের নিজস্ব জমি। পর্যটকদের আনাগোনায় এ দ্বীপের কোরাল দিনদিন নষ্ট হচ্ছে। দ্বীপ ও কোরাল বাঁচিয়ে রাখতে এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে।

সোলায়মান হায়দার আরো বলেন, ছেঁড়াদ্বীপ সংরক্ষণে সেখানে কাউকে যেতে দেয়া হবে না। পুরো সেন্টমার্টিন নিয়ে সরকারের পরিকল্পনা রয়েছে। যা পর্যায়ক্রমে বাস্তবায়ন করা হবে। কর্তৃপক্ষের নির্দেশনা পেলে দ্বীপের সব হোটেল ভেঙে দেয়া হবে।

পরিবেশ বিষয়ক সংস্থা ইয়ুথ এনভায়রনমেন্ট সোসাইটির প্রধান নির্বাহী এম ইব্রাহিম খলিল মামুন বলেন, ছেড়াদ্বীপ ও সেন্টমার্টিন সংরক্ষণে সরকারের উদ্যোগ কার্যকর দেখতে চাই। নইলে একমাত্র প্রবাল দ্বীপটি হারিয়ে যাবে।

দ্বীপের বাসিন্দা আবদুল মালেক বলেন, প্রতিদিন হাজারো পর্যটক সেন্টমার্টিন-ছেড়াদ্বীপ ভ্রমণে আসছে। তারা সৈকতে আবর্জনা ফেলে সৈকতে। এতে দ্বীপের পরিবেশ নষ্ট হচ্ছে।

সেন্টমার্টিনের ইউপি সদস্য ও প্যানেল চেয়ারম্যান আবদুর রহমান বলেন, পরিবেশ অধিদফতর ছেঁড়াদ্বীপে পর্যটক না যেতে নির্দেশনা দিয়েছে।

কুমিল্লার ধ্বনি
সারাবাংলা বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর