ব্রেকিং:
ক্রিকইনফোর একাদশেও সাকিব, নেই কোহলি রোহিঙ্গা সংকট নিয়ে জাতিসংঘ মহাসচিবের উদ্বেগ রিফাত হত্যায় জড়িত থাকার কথা স্বীকার করেছে মিন্নি জেলা হাসপাতালগুলো দালালমুক্ত করার নির্দেশ জঙ্গি-চরমপন্থীদের আবির্ভাব যেন না হয়: ডিসিদের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী মাছ উৎপাদনে আমরা প্রথম হতে চাই: প্রধানমন্ত্রী নয়ন বন্ডের ঘনিষ্ঠ রিশান ফরাজী গ্রেফতার ক্রাইস্টচার্চে নিহতদের স্বজনদের হজ করাবে সৌদি কঙ্গোতে ইবোলা সংক্রমণ: ‘বৈশ্বিক জরুরি অবস্থা’ ঘোষণা মাটির নিচে মিলল অনন্ত জলিলের ২০ লাখ টাকা (ভিডিও) রিফাত হত্যায় মিন্নি জড়িত থাকার ভয়ংকর তথ্য জানালেন তদন্ত কর্মকর্তা বাংলাদেশে খাদ্য-নিরাপত্তা বেড়েছে পাসের হারে সারা দেশে কুমিল্লা বোর্ড প্রথম দুদকের অভিযানে সরকারি ওষুধ বেচতে গিয়ে ধরা খেল নার্স বাংলাদেশে বিলুপ্তি’র পথে শতাধিক দেশীয় মাছ কুমিল্লা শিক্ষা বোর্ডে সবার উপরে চাঁদপুর, নিচে ফেনী মিন্নির ১০দিনের রিমান্ড চায় পুলিশ বাংলাদেশে গুগল ম্যাপে যুক্ত হলো নতুন ফিচার বন্যা মোকাবিলায় সেনাবাহিনী প্রস্তুত: সেনাপ্রধান গাপটিলের সেই থ্রো নিয়ে কথা বলল আইসিসি

বৃহস্পতিবার   ১৮ জুলাই ২০১৯   শ্রাবণ ৩ ১৪২৬   ১৫ জ্বিলকদ ১৪৪০

কুমিল্লার ধ্বনি
২০

পুলিশে চাকরির প্রলোভন দেখিয়ে তরুণীকে ধর্ষণ, গ্রেফতার ২

প্রকাশিত: ১০ জুলাই ২০১৯  

চট্টগ্রাম নগরে তিনদিন ধরে হোটেলে আটকে রেখে এক তরুণীকে ধর্ষণের অভিযোগে দুইজনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। উদ্ধার করা হয়েছে ওই তরুণীকেও। 

সোমবার রাতভর নগরের ডবলমুরিং থানার ঝর্ণাপাড়া এলাকায় অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেফতার করা হয়। পুলিশে চাকরি ও বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে তাকে ধর্ষণ করা হয় বলে জানিয়েছে পুলিশ।

গ্রেফতাররা হলেন- নোয়াখালী জেলার সুধারাম থানার ভাটিরটেক গ্রামের মালেক বেপারীর বাড়ির আবদুল মালেকের ছেলে শাহাদাৎ হোসেন রাজু ও  একই থানার পূর্ব শোলাকিয়া গ্রামের আনোয়ার হোসেনের ছেলে মোহাব্বত আলী। এদের মধ্যে রাজু টেন্ডলের (ট্রাফিক পুলিশের হয়ে গাড়ি থেকে চাঁদা তোলার কাজ) কাজ করেন ও ডবলমুরিং থানার মনসুরাবাদ পাসপোর্ট অফিসের সামনে টং দোকান রয়েছে মোহাব্বত আলীর।

ডবলমুরিং থানার উপ পরিদর্শক অর্ণব বড়ুয়া জানান, ওই তরুণী কেইপিজেডের একটি পোশাক কারখানায় কাজ করেন। রাজুর সঙ্গে তার মোবাইল ফোনে পরিচয় হয়। নিজের সঙ্গে পুলিশের উর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের পরিচয় আছে জানিয়ে রাজু তাকে পুলিশ কনস্টেবল পদে চাকরি দেওয়ার প্রলোভন দেখান। এছাড়াও তাকে বিয়ে করার প্রস্তাব দেন। তরুণীটি বিয়ের প্রস্তাবে রাজী হলে তাকে আগ্রাবাদের চৌমুহুনী হোটেল হক টাওয়ারের ৪০৬ নং কক্ষে নিয়ে আসেন। সেখানে ৭ জুলাই পর্যন্ত আটকে রেখে তাকে ধর্ষণ করেন রাজু। ওই তরুণীর বিয়ের জন্য চাপাচাপি করলে মোহাব্বতকে ডেকে এনে তার সঙ্গে ওই তরুণীর পরিচয় করিয়ে দিয়ে তাকে বাসায় নিয়ে যেতে বলে। সেখানে বিয়ে হবে বলে প্রতিশ্রুতি দেন রাজু। মোহাব্বত ওই তরুণীকে মিস্ত্রিপাড়ার একটি বাসায় নিয়ে যান। সেখানে তাকে কয়েকবার যৌন হয়রানি করেন মোহাব্বত। ওইদিন সেখান থেকে কৌশলে পালিয়ে আসেন ওই তরুণী। পরদিন তার ফেলে আসা জিনিসপত্রের জন্য মোহাব্বতের সঙ্গে যোগাযোগ করলে মোহাব্বত তাকে ডবলমুরিং থানার মনসুরাবাদ আসতে বলেন। ওই তরুণী সেখানে আসলে তাকে নিয়ে ঝর্ণাপাড়ার নাহার বিল্ডিংয়ের নিচতলায় স্ত্রী পরিচয়ে রেখে মোহাব্বত চলে যান।

তিনি জানান, এরপর ওই তরুণী বাসা থেকে বের হয়ে ভবনের মালিককে জানালে মালিক পুলিশকে খবর দেন। পুলিশ গিয়ে ওই তরুণীকে উদ্ধার করে। এরপর ডবলমুরিং থানার ঝর্ণাপাড়া এলাকা থেকে মোহাব্বতকে ও চারিয়াপাড়া এলাকা থেকে রাজুকে গ্রেফতার করা হয়। 

নগর পুলিশের ডবলমুরিং জোনের সহকারী কমিশনার আশিকুর রহমান বলেন, ওই তরুণীকে ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। তিনি বাদি হয়ে মামলা দায়ের করেছেন। আসামিদের গ্রেফতার করে আদালতে পাঠানো হয়েছে। আদালত তাদের কারাগারে পাঠিয়েছেন।

কুমিল্লার ধ্বনি
কুমিল্লার ধ্বনি
এই বিভাগের আরো খবর