ব্রেকিং:
ডিমের মূল্য তালিকা-ক্রয়ের রশিদ না থাকায় জরিমানা প্রবাসীদের প্রেমের ফাঁদে ফেলে অপহরণ, গ্রেফতার ৬ আখাউড়ায় চোরাই মোটরসাইকেলসহ যুবক আটক বাজারে চুরির ঘটনায় ৩ নৈশ প্রহরী গ্রেফতার ‘সাদা কালা’ গানে এবার ঝড় তুললেন নোয়াখালীর ৫ যুবক এক ঘণ্টায় শেষ বাংলাদেশের ম্যাচের সব টিকিট শিক্ষা প্রতিষ্ঠান পরিচালনা করবে ম্যানেজিং কমিটি ২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলার কাউকেই ছাড় দেওয়া হবে না: আইনমন্ত্রী মেয়াদোত্তীর্ণ ওষুধ রাখায় জরিমানা গুনলো দুই ফার্মেসি ঝরে পড়া শিশুদের পাঠদানে ফেরাতে প্রশিক্ষণ দম্পতিকে শৌচাগারে আটকে রাখায় আত্মহত্যা চেষ্টা সরকারি ভবনে বিদ্যুৎ ও জ্বালানি সাশ্রয়ী ব্যবহারের নির্দেশনা জারি প্রত্যাবাসন নিরাপদ না হলে আবারো ফেরত আসবে রোহিঙ্গা ৪০ বছরের মধ্যে যুক্তরাজ্যের মূল্যস্ফীতি সর্বোচ্চ শিক্ষার্থীদের হেনস্তা করায় কুমিল্লায় ট্রেন আটকে প্রতিবাদ ইউক্রেন সফরে আসছেন এরদোগান ও গুতেরেস প্রেমের টানে বগুড়ায় এসে ধর্ষণের শিকার, গ্রেফতার ২ রাশিয়া থেকে জ্বালানি তেল কেনার উপায় খোঁজার নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর ঢাকা ওয়াসার কর্মীদের উৎসাহ বোনাসে হাইকোর্টের নিষেধাজ্ঞা দেশে অপুষ্টিতে ভুগছেন ১ কোটি ৭০ লাখ বিবাহিত নারী
  • বুধবার   ১৭ আগস্ট ২০২২ ||

  • ভাদ্র ৩ ১৪২৯

  • || ১৯ মুহররম ১৪৪৪

প্রকৃতির কোলে ফিরে গেল ২০ পাখি

কুমিল্লার ধ্বনি

প্রকাশিত: ১৮ জুলাই ২০২২  

অবশেষে প্রকৃতির কোলে ফিরে গেল উদ্ধার হওয়া ২০ পাখি। বন্যপ্রাণী সংরক্ষণ ও নিরাপত্তার লক্ষ্যে নোয়াখালীতে অভিযান চালিয়ে এই ২০ পাখি উদ্ধার করে উপকূলীয় বন বিভাগ। উদ্ধার পাখিগুলোর মধ্যে রয়েছে— ২টি ঘুঘু, ৬টি মুনিয়া, ৬টি শালিক ও ৬টি টিয়া পাখি।

সোমবার (১৮ জুলাই) সকালে নোয়াখালী পৌর পার্কে পাখিগুলো অবমুক্ত করেন জেলা প্রশাসক (ডিসি) দেওয়ান মাহবুবুর রহমান। এসময় উপস্থিত ছিলেন— উপকূলীয় বন বিভাগ নোয়াখালীর বিভাগীয় বন কর্মকর্তা মো. ফরিদ মিঞা, সহকারী বন সংরক্ষক কাজী তারিকুর রহমান প্রমুখ।

ডিসি জানান, ‘আমরাই পারি বন্যপ্রাণী বাঁচাতে’ এ স্লোগানে বন্যপ্রাণী সংরক্ষণ ও নিরাপত্তার লক্ষ্যে নোয়াখালীতে অভিযান চালায় উপকূলীয় বন বিভাগ। অভিযানে রোববার (১৭ জুলাই) দুপুর থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত নোয়াখালীর মাইজদীর পৃথক স্থানে অভিযান চালিয়ে আলাদা দুইজন বিক্রেতার কাছ থেকে বিক্রির জন্য আটকে রাখা অবস্থায় পাখিগুলো জব্দ করা হয়। পরে আগামীতে এমন কাজ করবে না মর্মে বিক্রেতাদের কাছ থেকে মুচলেকা নিয়ে তাদের ছেড়ে দেওয়া হয়েছে।

বন্যপ্রাণী সংরক্ষণ ও নিরাপত্তা আইন, ২০১২ এর তফশিল-১ এর অন্তর্ভুক্ত রক্ষিত বন্যপ্রাণী ধরা, শিকার, হত্যা করা, খাওয়া, ক্রয়-বিক্রয় আইনত দণ্ডনীয় অপরাধ তাই এ অভিযান অব্যহত থাকবে বলে জানিয়েছেন বিভাগীয় বন কর্মকর্তা।