ব্রেকিং:
মাস্ক ছাড়া বাইরে বের হলে ৬ মাসের জেল, ১ লাখ টাকা জরিমানা করোনা প্রকল্পে বিশেষ বরাদ্দ ২০৭ কোটি টাকা এসএসসির সব সূচকেই ভাল ফল দেশে আজও দুই হাজারের অধিক আক্রান্ত, মৃত্যু ২২ করোনা আক্রান্তদের জন্য স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের নতুন সেবা নারী শান্তিরক্ষীদের অবদানের কথা তুলে ধরলেন রাবাব ফাতিমা করোনা শনাক্ত করতে রাজধানীতে আরো দুটি ল্যাব চালু ভর্তুকি খাতে বরাদ্দ বাড়ছে সাড়ে ৫ হাজার কোটি টাকা মানব পাচারকারীদের গ্রেফতারে তদন্তে নেমেছে সিআইডি সিএএমএসের মাধ্যমে হচ্ছে গরিবদের ডাটাবেস শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান এখনই খোলা হবে না : প্রধানমন্ত্রী ব্যবসায়ীদের ২০০০ কোটি টাকা সুদ মওকুফ করা হবে : প্রধানমন্ত্রী দুই মাস পর পুরোনো রূপে চাঁদপুর, স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলছে লঞ্চ বৃদ্ধকে প্লাজমা দিলেন করোনাজয়ী চিকিৎসক বরুড়ার সেই চা বিক্রেতার স্কুলে শতভাগ পাশ চাঁদপুরে আরো ১১ জনের করোনা শনাক্ত ছেলের মরদেহ নিয়ে সাড়ে ৬ ঘণ্টা সড়কে দাঁড়িয়ে ছিলেন বাবা-মা কুমিল্লায় চিকিৎসকসহ নতুন আক্রান্ত ১০৩ করোনার অবনতি হলে এবার কঠোর লকডাউন: প্রধানমন্ত্রী এস.এস.সি-২০২০ এর ফলাফলে কুমিল্লা শিক্ষা বোর্ডের অভাবনীয় সাফল্য
  • মঙ্গলবার   ০২ জুন ২০২০ ||

  • জ্যৈষ্ঠ ১৯ ১৪২৭

  • || ০৯ শাওয়াল ১৪৪১

৩২৯

ফুলবাড়ীতে শীতজনিত রোগে কাবু বয়স্ক-শিশুরা

কুমিল্লার ধ্বনি

প্রকাশিত: ১৩ জানুয়ারি ২০১৯  

প্রচণ্ড ঠান্ডায় দিনাজপুরসহ আশে পাশের উপজেলা গুলোতে শীতজনিত রোগে সবচেয়ে বেশি আক্রান্ত হচ্ছে শিশু ও বয়স্করা। বরাবরের মত দেশের উত্তরাঞ্চলের জেলা দিনাজপুরে হাড় কাঁপানো শীত অনুভুত হচ্ছে। ফুলবাড়ীসহ বেশ কিছু একালায় শীতে কাবু হয়ে পড়েছে মানুষ। শীতের প্রকোপ বাড়ার সঙ্গে সঙ্গেই বাড়ছে নিউমোনিয়া ও ডায়রিয়া আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা।

ফুলবাড়ী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স ঘুরে এ চিত্র দেখা গেছে। অতিরিক্ত শীতের কারণে এসব রোগ বাড়ছে বলে জানিয়েছেন

চিকিৎসকরা।

সুজালপুর গ্রামের খাদিজা বেগম বলেন, গত দুইদিন ধরে শ্বাসজনিত সমস্যার কারণে তার শিশুকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স

হাসপাতালে ভর্তি করিয়েছেন। ডাক্তারের চিকিৎসায় অনেকটা ভালো হয়েছে।

উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. নুরুল ইসলাম বলেন, প্রতিদিন ৮-১০ জন রোগী শীতজনিত রোগে আক্রান্ত হয়ে বিভিন্ন এলাক থেকে চিকিৎসা নিতে আসছেন। এদের মধ্যে বেশিরভাগ শিশু ও বয়স্ক। প্রতি সপ্তাহে গড়ে

২৫-৩০জন বয়স্ক ও শিশু রোগী স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি হচ্ছেন। স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের সাধ্য অনুযায়ী ওষুধ ও চিকিৎসা সেবা দেয়া হচ্ছে এতে

তারা দুই-একদিনেই সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরছে।

এছাড়া গত ডিসেম্বর মাসে শিশু ভর্তি হয়েছিল মোট ৩৫২ জন। তাদের মধ্যে ১৫০ জন ডায়রিয়ায় ও নিউমোনিয়ায় ৩৮ জন, জ্বর সর্দি

কাশি ১৬৪ জন আক্রান্ত হয়েছে। এদের মধ্যে বয়স্করা ৫/৭ দিন চিকিৎসা নিয়ে বাড়ি ফিরলেও শিশু ওয়ার্ডে এখনো ডায়রিয়ায় আক্রান্ত

রোগীর সংখ্যা অনেক বেশি।

কুমিল্লার ধ্বনি