ব্রেকিং:
সভা-সমাবেশে উপেক্ষিত খালেদা জিয়া আজ ঐতিহাসিক ৭ মার্চ পরকীয়া প্রেমিককে ডাকাত অপবাদে হত্যা ১৩০০ বছরের ৩টি পুরাকীর্তি পাওয়া গেল গোমতীর পাড়ে কুমিল্লা শিল্পীদের জন্য উর্বর ভূমি কুমিল্লায় ক্যারাম প্রতিযোগিতা সন্ত্রাসী মহিউদ্দিন গ্রেফতার কমনওয়েলথের অনুপ্রেরণাদায়ী নারী শেখ হাসিনা সাপ্তাহিক টিকাদানে চীন-ভারতের চেয়ে এগিয়ে বাংলাদেশ মোবাইল ব্যাংকিংয়ে ১০ কোটি গ্রাহকের মাইলফলক পলিটেকনিক শিক্ষার্থীদের উচ্চশিক্ষার সুযোগ হচ্ছে সুনীল অর্থনীতিতে অপার সম্ভাবনা বিষমুক্ত সবজি বিপ্লবের হাতছানি পূর্বমুখী বাণিজ্যে ‘রেশমী’ সম্ভাবনা অস্ত্র পাচ্ছে মাদক নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তর ৬৬০ থানায় একযোগে ৭ই মার্চ উদ্যাপন করবে পুলিশ -আইজিপি বিশ্বের দ্বিতীয় নিউজিয়াম গড়ে তুলেছেন বাংলার এক কৃষক আল-জাজিরার বাংলাদেশবিরোধী কর্মকাণ্ড নিয়ে হাকিকা টিভির রিপোর্ট জাহাজে আসছে মেট্রোরেলের প্রথম ট্রেন অবৈধভাবে দখল হওয়া খালের দুই পাশ দখলমুক্ত করা হবে
  • রোববার   ০৭ মার্চ ২০২১ ||

  • ফাল্গুন ২৩ ১৪২৭

  • || ২২ রজব ১৪৪২

ফেসবুকে সুলভে বিজ্ঞাপন, টাকা পেলেই ব্লক ক্রেতার নাম্বার

কুমিল্লার ধ্বনি

প্রকাশিত: ১০ ফেব্রুয়ারি ২০২১  

ফেসবুকে প্রসাধনসামগ্রী বিক্রির বিজ্ঞাপন দিয়ে মোবাইল ব্যাংকিংয়ের মাধ্যমে টাকা হাতিয়ে নিচ্ছিলেন কথিত এক দম্পতি। সোমবার সিআইডি তাদের গ্রেফতার করে। মঙ্গলবার তাদের বিরুদ্ধে মামলা হয়েছে। 

রাজধানীর মোহাম্মদপুরের ঢাকা উদ্যান হাউজিং সোসাইটিতে অভিযান চালিয়ে প্রবাল তালুকদার ও জেনিফা তালুকদার দম্পতিকে গ্রেফতার করা হয়। গ্রেফতারের সময় তাদের কাছ থেকে প্রতারণায় ব্যবহৃত চারটি ফোন উদ্ধার করে সিআইডি।

মঙ্গলবার কথিত এই দম্পতির প্রতারণার শিকার নাদিয়া ইসলাম নামে এক নারী তাদের বিরুদ্ধে মোহাম্মদপুর থানায় ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা করেছেন বলে জানা গেছে। 

মামলায় নাদিয়া ইসলাম বলেন, অল এসেনশিয়াল বাই জেরিন নামে একটি ফেসবুক গ্রুপে সুলভ মূল্যে প্রসাধনসামগ্রী বিক্রির বিজ্ঞাপন দেখে তাদের সঙ্গে যোগাযোগ করেন তিনি। গত বছরের ১০ মার্চ থেকে নভেম্বর পর্যন্ত তাদের দেয়া দুটি ফোন নম্বরে ৬৭ হাজার ৮০০ টাকা বিকাশ করেন নাদিয়া। প্রবাল নিজে তার বাসায় এসে টাকা নিয়ে যান। পণ্য পৌঁছে দেয়ার তারিখ পার হলেও তার কাছে মালামাল পৌঁছে দেয়া হয়নি। পরে তারা নাদিয়ার নাম্বারগুলো ব্লক করে দেন।

মামলার তদন্ত তদারক কর্মকর্তা সিআইডির সিপিসির বিশেষ এসপি এস এম আশরাফুল আলম জানান, জেনিফা ও প্রবাল সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে গ্রুপ খুলে প্রসাধনসামগ্রী বিক্রির চটকদার বিজ্ঞাপন দিতেন। এসব বিজ্ঞাপন দেখে ক্রেতারা তাদের সঙ্গে যোগাযোগ করলে তারা ক্রেতাদের বিকাশ করে টাকা পাঠাতে বলেন। টাকা পাওয়ার পর তারা ক্রেতাদের নাম্বার ব্লক করে তাদের সঙ্গে যোগাযোগ বন্ধ করে দেন। 

সিআইডি জানায়, প্রতারণার শিকার কয়েকজন সিআইডির সাইবার পুলিশ সেন্টারে (সিপিসি) গিয়ে অভিযোগ করেন। পরে সিপিসির সদস্যরা অবস্থান শনাক্ত করে প্রতারক দম্পতি জেনিফা ও প্রবালকে আটক করে। পুলিশ বলছে, দুজনই মাদকসেবী। স্বামী-স্ত্রী পরিচয় দিলেও এ বিষয়ে পুলিশের সন্দেহ রয়েছে।

কুমিল্লার ধ্বনি