ব্রেকিং:
অর্থ চোরাচালান করায় তারেক-জোবায়দার একাউন্ট আবারো জব্দ ফরিদগঞ্জ উপজেলা কেন্দ্রীয় সমিতির বার্ষিক সাধারণ সভা বেহাল অবস্থায় কুমিল্লা চিড়িয়াখানা মানসিক প্রতিবন্ধি হৃদয় ৬ দিন ধরে নিখোঁজ ফরিদ মিয়ার জন্য কান্না থামছে না এতবারপুর গ্রামের মানুষের তামিমার ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার !!! করোনায় ২৪ ঘণ্টায় আরো ৮ মৃত্যু পোশাক খাতে ভিয়েতনামকে পেছনে ফেলল বাংলাদেশ চা উৎপাদনে বৃহত্তর চট্টগ্রামকে ছাড়িয়ে গেছে পঞ্চগড় আলোর ফেরিওয়ালা পলান সরকারের দ্বিতীয় মৃত্যুবার্ষিকী আজ আধুনিক পুলিশ মোতায়েন হবে তিন পার্বত্য জেলায় জট খুলেছে ড্রাইভিং লাইসেন্সের ঋণ নিয়ে নয়ছয় করলে কঠোর শাস্তি আঙ্গুলের ছাপ দিয়ে অপরাধী শনাক্তে র‌্যাব এনেছে ওয়াইভিএস বেসরকারি ভবে বন্ধ পাটকল চালুর নীতিতে প্রধানমন্ত্রীর সম্মতি জেলাপর্যায়ে বিশ্ববিদ্যালয় করে দিচ্ছে সরকার :প্রধানমন্ত্রী ভাসানচরে রোহিঙ্গাদের দেয়া সুযোগ-সুবিধায় ওআইসি’র সন্তোষ শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে ছুটির আদেশ জারি রোহিঙ্গা ক্যাম্পে সতর্কতার সঙ্গে কাজ করতে বলেছে সংসদীয় কমিটি আজ থেকে দুই মাস ইলিশ ধরা নিষিদ্ধ
  • সোমবার   ০১ মার্চ ২০২১ ||

  • ফাল্গুন ১৮ ১৪২৭

  • || ১৭ রজব ১৪৪২

বহিষ্কার হচ্ছেন বিএনপির এমপি হারুন অর রশীদ

কুমিল্লার ধ্বনি

প্রকাশিত: ২৩ ফেব্রুয়ারি ২০২১  

বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার জামিন ইস্যুতে কোনো আন্দোলন গড়ে তুলতে না পারায় তারেক রহমানকে দায়ী করে ২২ই ফেব্রুয়ারি ফেসবুকে স্ট্যাটাস দেন বিএনপির সংসদ সদস্য হারুন অর রশীদ।

উক্ত স্ট্যাটাসে তিনি লিখেন, বলতে দ্বিধা নেই, একমাত্র তারেক রহমানের কারণেই বেগম খালেদা জিয়াকে মুক্ত করা যাচ্ছে না। ২১শে ফেব্রুয়ারি ভাষা শহীদ দিবসের মধ্যে জামিন না দিলে আমাদের আন্দোলন করার কথা ছিলো, কিন্তু তারেক রহমানের সিদ্ধান্তের কারণে আমরা আন্দোলন থেকে সরে আসি। এটি দুঃখজনক। মাঝে মাঝে মনে হয়, দলে তারেক রহমান না থাকলে এতদিনে আমরাই হয়তো সরকার চালাতাম।

হারুন অর রশীদের এমন কথা লন্ডন পর্যন্ত পৌঁছালে বিব্রত হয়ে পড়েন তারেক রহমান। জানা যায়, এ কারণে দল থেকে বহিষ্কার হতে পারেন বিএনপির এই নেতা। যদিও জনসাধারণকে বলা হচ্ছে, নেতৃত্ব পরিবর্তনের দাবি তোলায় শৃঙ্খলা ভঙ্গের অভিযোগ এনে তাকে বহিষ্কার করা হতে পারে। এদিকে পরিবর্তন চাওয়া হারুন অর রশীদের দাবিকে উসকানিমূলক বলে চালিয়ে দিচ্ছেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির অন্য সদস্যরা। তবে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ব্যারিস্টার মওদুদ আহমেদ বলছেন ভিন্ন কথা।

মওদুদ আহমেদ বলছেন, ইদানীং কিছু নেতা বিএনপির নেতৃত্বে পরিবর্তন চাচ্ছেন। তারা চাইছেন না, বিএনপির নেতৃত্বে তারেক রহমান কিংবা মির্জা ফখরুল থাকুক। তবে এই অভিযোগে কিন্তু কাউকে বহিষ্কার করা হয়নি। যদি ভবিষ্যতে কাউকে বহিষ্কার করা হয়, সেটা শুধুমাত্র শৃঙ্খলা ভঙ্গের কারণেই হবে। আর কেউ যদি দলের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানের পরিবর্তন চায়, সে কখনোই বিএনপির সমর্থক হতে পারে না। এটাও মাথায় রাখতে হবে।

এ প্রসঙ্গে বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী বলেন, সিনিয়র নেতাদের পদত্যাগ চাওয়ার কারণে হয়তো বহিষ্কার হতে পারেন হারুন অর রশীদ। বলে রাখা ভালো, এর আগে তারেক রহমানের পদত্যাগ চাওয়ায় দেশের বিভিন্ন অঞ্চলের তৃণমূল বিএনপির ৪৪ নেতাকে বহিষ্কার করা হয়েছিলো।

কুমিল্লার ধ্বনি