ব্রেকিং:
একশ’ কোটি টাকা নিয়ে ভারতে পালালেন ব্যবসায়ী মুন্সেফ কোয়ার্টার এলাকার সড়কের নামফলক অপসারণ কুমিল্লা মহানগর মহিলা আওয়ামী লীগের কমিটি অনুমোদন ২০ লাখ টাকার দাবিতে বন্ধুকে অপহরণ, সাতদিন পর উদ্ধার গোসল করাকে কেন্দ্র করে সৌদিতে বাংলাদেশি যুবক খুন ‘দুর্নীতি দমনে সরকার আশাবাদী’ প্রধানমন্ত্রী আবুধাবি পৌঁছেছেন ব্রাহ্মণপাড়ায় প্রান্তিক জনগোষ্ঠিদের মাঝে অনুদান বিতরণ কুবিতে সাংবাদিক হয়রানি ও লাঞ্ছনার বিচার চেয়ে মানববন্ধন কুমিল্লায় এ্যাম্বুল্যান্সের অবৈধ পার্কিংএ সৃষ্টি হচ্ছে যানজট লাকসাম রেলওয়ে জংশনের ষ্টেশন মাস্টারের বিরুদ্ধে অনিয়মের অভিযোগ তিতাসে ৭ জন প্রার্থীর মনোনয়নপত্র জমা চান্দিনায় বেতন স্কেল বৃদ্ধির দাবীতে শিক্ষকদের মানববন্ধন চৌদ্দগ্রামে ৭ দফার দাবিতে শিক্ষকদের মানববন্ধন দেবিদ্বারে পুলিশের অভিযানে দুই গাঁজা ব্যবসায়ী আটক হোমনায় এনজিও কর্মীকে পিটিয়ে টাকা পয়সা ছিনতাই কুমিল্লায় নারীসহ দুই মাদক ব্যবসায়ী আটক মুরাদনগরে নিজের ড্রেজারের নৌকায় বালু ব্যবসায়ীর লাশ নাঙ্গলকোটে সরকারি খাল পাড়ের অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ বরুড়ায় শহীদ মুক্তিযোদ্ধাদের স্মরণ

রোববার   ২২ সেপ্টেম্বর ২০১৯   আশ্বিন ৬ ১৪২৬   ২২ মুহররম ১৪৪১

কুমিল্লার ধ্বনি
৫১৯

রিকশা চালকের সততা, ৩ লাখ টাকা পেয়েও দিলেন ফিরিয়ে

প্রকাশিত: ১১ সেপ্টেম্বর ২০১৯  

স্কুল শিক্ষকের তিন লাখ টাকা ফিরিয়ে দিয়ে উদারতার পরিচয় দিয়েছেন সাজ্জাদ হোসেন নামের এক রিকশাচালক। তার সততায় মুগ্ধ হয়ে পুরস্কারের ঘোষণা দিয়েছেন নওগাঁর এসপি আবদুল মান্নান মিয়া।

মঙ্গলবার রাত ৯টার দিকে টাকার মালিক নওগাঁ কেডি উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষক আবদুল হাকিমকে ফিরিয়ে দিয়েছেন সেই টাকা। রিকশাচালক সাজ্জাদ হোসেন নওগাঁ শহরের জনকল্যাণ হঠাৎপাড়ার ওয়াহেদ আলীর ছেলে। 

জানা যায়, গেল ৬ সেপ্টেম্বর সকাল ৯টার দিকে শিক্ষক আবদুল হাকিম সপরিবারে রাজশাহী যাওয়ার উদ্দেশে শহরের মুক্তির মোড় থেকে অটোরিকশায় বালুডাঙা বাসস্ট্যান্ড যান। পরে রাজশাহীর বাসে উঠে একটু দূরে গিয়ে তার কম্পিউটার ব্যাগে থাকা তিন লাখ টাকার কথা মনে হয়। সে সময় ওই টাকার ব্যাগ অটোরিকশায় ফেলে এসেছেন বলে ধারনা করেন তিনি। সঙ্গে সঙ্গে বাস থেকে নেমে বাসস্ট্যান্ডে এসে রিকশাটি খোঁজাখুঁজি করেও না পেয়ে সদর থানায় একটি লিখিত অভিযোগ করেন।

অভিযোগ পেয়ে সদর থানার এসআই ইব্রাহিম হোসেন শহরের ভেতর দিয়ে যাওয়া প্রধান সড়কের পাশে অবস্থিত কয়েকটি স্থানের সিসি টিভি ক্যামেরা থেকে ফুটেজ সংগ্রহ করেন। পাশপাশি ওই রিকশাচালককে শনাক্ত করার চেষ্টা চালান।

পরে রিকশা চালকের নাম-ঠিকানা সংগ্রহ করা হয়। গেল ৯ সেপ্টেম্বর রাত ১১টার দিকে থানা-পুলিশ ও টাকার মালিকসহ ওই রিকশাচালকের বাড়ি থেকে  তিন লাখ টাকা (এক হাজার টাকার তিন বান্ডিল) উদ্ধার করা হয়।

এদিকে রিকশাচালকও ওই টাকাগুলো নিয়ে বিপাকে ছিলেন বলেন জানান। টাকার ব্যাগ নিয়ে তিন দিন মালিককে খুঁজেন তিনি। পরে না পেয়ে বাড়িতে রেখে দেন। পুলিশ তার বাড়িতে গেলে তিনি বিষয়টি পুলিশকে জানায়।

রিকশাচালক সাজ্জাদ হোসেন বলেন, ওই দিন তারা তড়িঘড়ি করে রিকশা থেকে নেমে যান। পরে দেখি রিকশায় একটি ব্যাগ। এরপর ব্যাগটি বাড়িতে নিয়ে এসে দেখি অনেক টাকা। টাকাগুলো নিয়ে দুশ্চিন্তায় পড়ে যাই।

টাকা হস্তান্তরের সময় উপস্থিত এসপি আবদুল মান্নান মিয়া বলেন, আপনারা সম্পদ বহন করার সময় সাবধানতা অবলম্বন করবেন। আমরা এরই মধ্যে মানি স্কট ব্যবস্থা চালু করার সিদ্ধান্ত নিয়েছি।

কুমিল্লার ধ্বনি
কুমিল্লার ধ্বনি
এই বিভাগের আরো খবর