ব্রেকিং:
আদিবাসী নিয়ে ফের বিভ্রান্তি সৃষ্টির চেষ্টা পার্বত্য চট্টগ্রামের নৃ-গোষ্ঠীগুলো আদিবাসী না অভিবাসী? দেশে করোনায় ২৪ ঘণ্টায় প্রাণ গেলো ৩২ জনের, আক্রান্ত ২৬১১ হাঁস চুরির ঘটনায় দু’দলের মারামারি ভাংচুর ও লুটপাট, আহত ১০ একাদশে ভর্তির আবেদন শুরু কাল, যেভাবে করবেন টেকসই বাঁধ নির্মাণে গুরুত্ব দেওয়া হচ্ছে পোশাকশিল্পে অবিশ্বাস্য রকমের প্রবৃদ্ধি হবেই দেশের ইতিহাসে সর্বোচ্চ বৈদেশিক সাহায্যের নতুন রেকর্ড বাংলাদেশের সঙ্গে আরো জোরালো সম্পর্ক গড়ার উদ্যোগ ভারতের দুর্গম ৩১ দ্বীপে বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইটের উচ্চগতির ইন্টারনেট বঙ্গবন্ধুর খুনিকে ফেরাতে ট্রাম্পকে চিঠি দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী ফজিলাতুন্নেছা মুজিব ছিলেন বঙ্গবন্ধুর বিশ্বস্ত সহচর বঙ্গবন্ধু ছিলেন কৃষকের আপনজন পাউবোর কাজে ধীর গতি, শত কোটি টাকার ক্ষতির আশঙ্কা অবশেষে ব্রাহ্মণবাড়িয়ার ত্রাণের সব তালিকা বাতিল বাজারে হামলা, দুই চেয়ারম্যানের পাল্টা পাল্টি অভিযোগ বঙ্গমাতার ৯০তম জন্মবার্ষিকী আজ চাঁদপুরে ১২৭ রিপোর্টে পজিটিভ ২০ ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় আরো ২৩ জন করোনায় আক্রান্ত কুমিল্লায় নতুন করে ৪৭ জনের করোনা শনাক্ত
  • শনিবার   ০৮ আগস্ট ২০২০ ||

  • শ্রাবণ ২৪ ১৪২৭

  • || ১৭ জ্বিলহজ্জ ১৪৪১

৭৮

সিলগালা করা হাসপাতালে অস্ত্রোপচার, প্রসূতির মৃত্যু

কুমিল্লার ধ্বনি

প্রকাশিত: ১২ নভেম্বর ২০১৯  

পাবনায় সিলগালা করা চাটমোহর ইসলামিক হাসপাতালে ভুল চিকিৎসায় এক প্রসূতির মৃত্যুর অভিযোগ উঠেছে। এ ঘটনায় জড়িত সন্দেহে কথিত সার্জন সাজ্জাদ হোসেন ও তার সহযোগী আসাদুজ্জামানকে গণধোলাই দিয়ে পুলিশে সোপর্দ করা হয়েছে।  

সোমবার রাতে পৌর শহরের নারিকেলপাড়া মহল্লার ক্লিনিকটিতে এ ঘটনা ঘটে। মৃত তাছলিমা খাতুন উপজেলার বিলচলন ইউপির বোঁথড় গ্রামের ইসমাইল হোসেনের স্ত্রী।

আটক কথিত সার্জন সাদ্দাম হোসেন বড়াইগ্রাম উপজেলার বাসিন্দা। তবে ক্লিনিক মালিক আমির হোসেন বাবলু পালিয়ে গেছেন।

মৃতের স্বজনদের বরাতে চাটমোহর স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের আবাসিক মেডিকেল অফিসার ডা. বায়েজীদ-উল ইসলাম জানান, সোমবার তাছলিমা খাতুনের প্রসব বেদনা উঠলে সিজার অপারেশনের জন্য স্বজনরা চাটমোহর ইসলামিক হাসপাতালে ভর্তি করেন। রাত সাড়ে ৮টায় কথিত সার্জন সাদ্দাম হোসেন নীরব, ক্লিনিক মালিক আমির হোসেন বাবলু, আসাদুজ্জামান ও দুই সেবিকা মিলে অস্ত্রোপচার শুরু করেন। এতে একটি মেয়ে নবজাতক ভূমিষ্ট হয়। এ সময় প্রসূতির অতিরিক্ত রক্তক্ষরণ হয়। অবস্থা বেগতিক দেখে মৃতপ্রায় প্রসূতিকে সেলাই না করে কথিত সার্জন, তার সহকারী ও ক্লিনিক মালিক পালানোর চেষ্টা করে।

তিনি আরো জানান, বিষয়টি টের পেয়ে রোগীর স্বজনরা সার্জন ও তার সহযোগীকে আটক করে গণধোলাই দিয়ে পুলিশে সোপর্দ করে। পরে প্রসূতিকে উদ্ধার করে পাবনা সদর হাসপাতালে নিলে চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।

চাটমোহর থানার ওসি সেখ নাসির উদ্দিন জানান, সাদ্দাম হোসেন ও তার সহকারী আসাদুজ্জামানকে আটক করা হয়েছে। মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে ।

চলতি বছরের ৩ জুলাই চাটমোহর ইসলামিক হাসপাতালে এনেসথেসিয়া (অজ্ঞানকারী) চিকিৎসক ছাড়া রোগীর অস্ত্রোপচার ও অস্বাস্থ্যকর পরিবেশে অস্ত্রোপচারের কারণে ক্লিনিক মালিককে জরিমানা করেন অ্যাসিল্যান্ড ইকতেখারুল ইসলাম। এছাড়া ক্লিনিকটি সিলগালা করে দেয়া হয়। তবে কাউকে না জানিয়ে সিলগালা ভেঙে আবারো ওই ক্লিনিকে অস্ত্রোপচার শুরু করে কথিত সার্জন সাদ্দাম হোসেন ও ক্লিনিক মালিক আমির হোসন বাবলু।

কুমিল্লার ধ্বনি
সারাবাংলা বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর