ব্রেকিং:
মাস্কের টুইটে উত্তাল ভারতের রাজনীতি চার মাসে বিদেশে চাকরি কমেছে ২০ শতাংশ রাজধানীর বড় বড় হাসপাতাল যেন ‘বাতির নিচে অন্ধকার’ ঈদের দিন যেসব উন্নত খাবার পেলেন কারাবন্দিরা আসুন ত্যাগের মহিমায় দেশ ও মানুষের কল্যাণে কাজ করি হাসিল নিয়ে ব্রাহ্মণবাড়িয়ার সরাইল বাজারে লঙ্কাকাণ্ড টিনের বেড়ায় বিদ্যুতের তার চাঁদপুরে অর্ধশত গ্রামে ঈদ উদযাপন স্বস্তিতে ঘরমুখো মানুষ যেভাবে গড়ে ওঠে শতবর্ষী কুমিল্লা কেন্দ্রীয় ঈদগাহ বেশি ভাড়া রাখায় উপকূল পরিবহনকে জরিমানা মিয়ানমার সীমান্তের পরিস্থিতি মোকাবিলায় প্রস্তুত থাকার নির্দেশ রাখাইনে বড় সংঘাতের আশঙ্কা, বাসিন্দাদের সরে যাওয়ার নির্দেশ একদিনে পদ্মাসেতুর আয় পৌনে ৫ কোটি টাকা চামড়া সিন্ডিকেটের বিরুদ্ধে র‌্যাবের কঠোর হুঁশিয়ারি ঈদে ট্রেনে মানুষের নির্বিঘ্নে বাড়ি যাওয়ার ব্যবস্থা করা হয়েছে আওয়ামী লীগের প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর আয়োজনে সকল রাজনৈতিক দলকে আমন্ত্রণ খাদ্যসামগ্রী ও দেড় শতাধিক মানুষ নিয়ে জাহাজ গেল সেন্ট মার্টিন কুমিল্লায় বেতন-বোনাসের দাবিতে ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়ক অবরোধ আফজাল খান পত্নী বীর মুক্তিযোদ্ধা নার্গিস আফজালের ইন্তেকাল
  • মঙ্গলবার ১৮ জুন ২০২৪ ||

  • আষাঢ় ৪ ১৪৩১

  • || ১০ জ্বিলহজ্জ ১৪৪৫

হোমনায় উত্তপ্ত ভোটের মাঠ, সুষ্ঠু নির্বাচন নিয়ে শঙ্কা!

কুমিল্লার ধ্বনি

প্রকাশিত: ২৯ মে ২০২৪  

ষষ্ঠ উপজেলা পরিষদ নির্বাচনের চতুর্থ ধাপে আগামী ৫ জুন অনুষ্ঠিত হবে কুমিল্লা জেলার হোমনা উপজেলা পরিষদ নির্বাচন। ২০ মে প্রতীক পাওয়ার পর থেকে নির্বাচনী প্রচার-প্রচারণায় প্রার্থীরা ব্যস্ত থাকলেও সাধারণ ভোটারদের মধ্যে তেমন আগ্রহ-উদ্দীপনা নেই বললেই চলে।
হোমনা উপজেলায় চেয়ারম্যান পদে তিনজন প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। তারা হলেন- কুমিল্লা-২ (হোমনা-মেঘনা) আসনের  সংসদ সদস্য  উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি অধ্যক্ষ আবদুল মজিদ এর স্ত্রী ও বর্তমান উপজেলা  চেয়ারম্যান রেহানা বেগম (আনারস), উপজেলা আওয়ামী লীগের  সাধারণ সম্পাদক  এ.কে.এম সিদ্দিকুর রহমান আবুল (মোটর সাইকেল) ও উপজেলা আওয়ামীলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক  ও সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান  মো. শহীদ উল্লাহ ( ঘোড়া)।
এ ছাড়া ভাইস চেয়ারম্যান (পুরুষ) পদে দুইজন  সদ্য সাবেক জেলা পরিষদ সদস্য মোহাম্মদ মকবুল হোসেন পাঠান( তালা),হোমনা উপজেলা যুবলীগের সাবেক যুগ্ন আহবায়ক মো. মনিরুজ্জামান টিপু( টিয়া পাখি)ও মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে তিনজন এ্যাডভোকেট খন্দকার হালিমা বেগম( হাঁস),শিউলী আক্তার আলো( কলস) ও মো. নাজমা হক (ফুটবল) প্রতীক নিয়ে  নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন।
জানাগেছে দীর্ঘদিন যাবৎ  এলাকায় রাজনৈতিক আধিপত্য বিস্তার  নিয়ে আওয়ামীলীগের নেতাকর্মীরা দুইগ্রুপে বিভক্ত ছিল।  এক গ্রুপের নেতৃত্বে ছিল সাবেক  সংসদ সদস্য সেলিমা আহমাদ  মেরী ও অন্যগ্রুপে ছিলেন হোমনা উপজেলা   আওয়ামীলীগের সভাপতি যিনি বর্তমান সংসদ সদস্য  অধ্যক্ষ আবদুল মজিদ ও সাধারন সম্পাদক একেএম সিদ্দিকুর রহমান আবুল। সংসদ নির্বাচনের পর থেকে সেলিমা আহমাদ মেরীর অনুসারি নেতাকর্মীদের তেমন কোন তৎপরতা দেখা যায়নি। ফলে  নির্বাচনে তাঁর গ্রুপের কোন প্রার্থী নির্বাচনে অংশ গ্রহন করছে না।
 কিন্ত ২৩ মে  এ.কে.এম সিদ্দিকুর রহমান আবুল ( মোটরসাইকেল) কে তিনি সমর্থন করেন যা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল হয়।  এর পর থেকেই  মেরীগ্রুপের নেতাকর্মীদের মাঝে প্রাণচাঞ্চল্য দেখা দেয়।  সাবেক সংসদ সদস্য গ্রুপ ও বর্তমান সংসদ গ্রুপে ভোটের মাঠে নামায়  ভোটের মাঠ বেশ উত্তপ্ত হয়ে উঠেছে।
 একদিকে বর্তমান সংসদ সদস্যের স্ত্রী  রেহানা বেগম,অপর দিকে সাবেক সংসদ সদস্যের সমর্থন  নিয়ে মাঠে রয়েছেন এ.কে.এম সিদ্দিকুর রহমান আবুল।  উভয়ই জয়ের ব্যাপারে তাদের সর্বশক্তি প্রয়োগ করতে পারে। এতে ভোটের শান্ত মাঠ অশান্ত হওয়ার আশংকা করছে সাধারণ ভোটার। ফলে সুষ্ঠু ও শান্তিপূর্ণ পরিবেশে ভোট হওয়া নিয়ে উদ্বেগ-উৎকণ্ঠায় পড়েছে  সাধারণ মানুষ।
 ইতোমধ্যে টিয়া পাখি প্রতীকের ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থী  মো. মনিরুজ্জামান টিপুর বিরুদ্ধে তালা প্রতীকের প্রার্থী মো  মকবুল হোসেন পাঠানের বাড়িতে হামলার অভিযোগ উঠেছে।এর প্রতিবাদে তার কর্মীরা সড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ ও সমাবেশ করেছে। থানায় লিখিত অভিযোগও রয়েছে। অপর দিকে  টিয়া পাখি প্রতীকের ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থী মনিরুজ্জামান টিপুর মো. হাবিবুর রহমান নামের এক কর্মীকে  মকবুল হোসেন পাঠানের লোকজন  মারধর করেছে মর্মে অভিযোগ উঠেছে।
তবে দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের মতই সুষ্ঠুভাবে ভোট করতে বদ্ধপরিকর নির্বাচন সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ।
এ বিষয়ে হোমনা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) জয়নাল আবেদীন  বলেন, নির্বাচন অবাদ সুষ্ঠু ও শান্তিপূর্ণ  করার লক্ষ্যে  কাজ করে যাচ্ছি। এ ব্যাপারে বিন্দুমাত্র ছাড় দেয়ার কোন সুযোগ নেই।
 উপজেলার নির্বাহী অফিসার (ইউএনও) ও সহকারি রিটার্নিং অফিসার  ক্ষেমালিকা চাকমা বলেন, উপজেলা নির্বাচন অবাধ, সুষ্ঠু ও শান্তিপূর্ণ পরিবেশে আয়োজনের লক্ষ্যেকাজ করছি। কেউ যদি নির্বাচনে বিশৃঙ্খলা করার চেষ্টা করে, সে যত বড় শক্তিশালীই হোক না কেন রাষ্ট্রের ঊর্ধ্বে নয়।আপনারা তো মাঠে থাকবেন সঠিক তথ্য দিয়ে সহযোগীতা করবেন।  নির্বাচনকে সুষ্ঠু করতে রাষ্ট্র আমাদেরকে দায়িত্ব দিয়েছে। আমরা সেই লক্ষ্যে কাজ করে যাবো।